উইকিশৈশব:রাসায়নিক মৌল/ক্যালসিয়াম

পর্যায় সারণীতে ক্যালসিয়ামের অবস্থান
পর্যায় সারণীতে ক্যালসিয়ামের প্রতীক

এটা দেখতে কেমন লাগে?সম্পাদনা

ক্যালসিয়াম একটি নরম ও ধূসর ধাতু। যখন এটি জ্বলে তখন একটি হলুদ-লাল শিখা দেখতে পাবে। যখন এটি বাতাসের সংস্পর্শে আসে, তখন এটি একটি ধূসর-সাদা আবরণ তৈরি করে কারণ এটি বাতাসের অক্সিজেনের সাথে বিক্রিয়া করে ক্যালসিয়াম অক্সাইড এর আবরণ তৈরি করে।

এটি দৃঢ়ভাবে ক্ষারীয় ধাতু। এটি শরীরের তরলের (যেমন:ঘাম) সঙ্গে বিক্রিয়া করে। ক্যালসিয়াম ধাতু অনেক শক্তিশালী এবং ক্ষত সৃষ্টি করতে পারে। এজন্য কখনো এটাকে স্পর্শ করবে না।

এটা কিভাবে আবিষ্কৃত হয়েছিল?সম্পাদনা

প্রাচীন রোমান সময় থেকে ক্যালসিয়াম ধাতুটি পরিচিত। রোমানরা চুল্লিতে চুনাপাথর গরম করে ক্যালসিয়াম অক্সাইড তৈরির উপায় আবিষ্কার করেছিল। তবে,১৮০৮ সালের আগে এটিকে কেউ বিশুদ্ধ করতে পারিনি । স্যার হামফ্রে ডেভিড ১৮০৮ সালে প্রথম বিশুদ্ধ ক্যালসিয়াম আবিষ্কার করেন।

এর নাম কোথা থেকে এসেছে?সম্পাদনা

ক্যালসিয়াম এর নাম ক্যালসিস থেকে এসেছে।ক্যালসিস একটি ল্যাটিন শব্দ যার অর্থ হলো চুন।

তুমি কি জানো?

  • ভেজা ক্যালসিয়াম হাইড্রোক্সাইড বাতাসের সাথে একত্রিত হলে এটি শক্ত ক্যালসিয়াম কার্বনেটে পরিণত হয়। এই রাসায়নিক বিক্রিয়াই সিমেন্টকে শক্ত করে তোলে।
  • ক্যালসিয়াম প্রাণীদের দেহের মধ্যে সবচেয়ে সাধারণ ধাতু।
  • স্ট্যালাকটাইট এবং স্ট্যালাগমাইটগুলি প্রাথমিকভাবে ক্যালসিয়াম কার্বনেট দিয়ে তৈরি।

এটা কোথায় পাওয়া যায়?সম্পাদনা

যৌগ গঠনের জন্য অন্যান্য উপাদানগুলির সাথে প্রতিক্রিয়া করার প্রবণতার কারণে ক্যালসিয়ামকে একটি উপাদান হিসাবে বিশুদ্ধ পাওয়া যায় না। তবে এটি সাধারণত যৌগ ক্যালসিয়াম কার্বনেট যৌগ হিসেবে পাওয়া যায়। চুনাপাথর, মার্বেল, চক এবং ক্যালসাইটের মতো অনেক শিলা এই পদার্থটি ধারণ করে। চুনাপাথরের গুহাগুলি যেখানে ক্যালসিয়াম পাওয়া যায় তার একটি দুর্দান্ত উদাহরণ। সামুদ্রিক খোসা এবং শামুকের খোলস মূলত ক্যালসিয়াম কার্বনেটের। ডিমের খোসা বেশিরভাগই এই যৌগ থেকে তৈরি হয়।

অনেক খাবারে ক্যালসিয়ামও উল্লেখযোগ্য পরিমাণে পাওয়া যায়। দুগ্ধজাত পণ্য যেমন দুধ, দই এবং পনিরে ক্যালসিয়াম থাকে। সবুজ শাকসবজিতেও প্রায়ই ক্যালসিয়াম থাকে। ব্রকলি, কলার শাক, বাদাম, তিলের বীজ এবং মটরশুটি সবই উল্লেখযোগ্য পরিমাণে ক্যালসিয়াম ধারণ করে।

 
হুভার বাঁধ সিমেন্ট দিয়ে তৈরি। ক্যালসিয়াম হল সেই উপাদান যা সিমেন্টকে শক্ত করে।

এর ব্যবহার কি?সম্পাদনা

ক্যালসিয়াম আমাদের শরীরের সঞ্চালনের জন্য গুরুত্বপূর্ণ। এটি শক্তিশালী হাড় এবং দাঁত তৈরি করতে সাহায্য করে এবং এটি আমাদের পেশী এবং মস্তিষ্কের কোষগুলিকে কাজ করার শক্তি দেয়।

ক্যালসিয়াম হল বিল্ডিং শিল্পে একটি গুরুত্বপূর্ণ পদার্থ, কারণ ক্যালসিয়াম হাইড্রক্সাইড সিমেন্ট এবং মর্টারে ব্যবহৃত হয়। ক্যালসিয়াম কার্বনেট প্লাস্টিক এবং আঠালো পদার্থে ফিলার হিসাবেও ব্যবহৃত হয়। কারণ ক্যালসিয়াম অক্সাইড অ্যাসিডকে নিরপেক্ষ করে। নদী এবং হ্রদে অ্যাসিড বৃষ্টির প্রভাব কমাতে ব্যবহৃত হয়।ক্যালসিয়াম সাধারণত অম্বল এবং অ্যান্টাসিড ট্যাবলেটেও ব্যবহৃত হয়।

এটা কি বিপদজনক?সম্পাদনা

ক্যালসিয়াম ধাতু জ্বালানো হলে গরম হয়ে যায় এবং এটি জলের সাথে তীব্রভাবে বিক্রিয়া করে শক্তিশালী-ক্ষারীয় ক্যালসিয়াম হাইড্রক্সাইড তৈরি করে যা রাসায়নিক পোড়ার কারণ হতে পারে।

ক্যালসিয়াম যৌগগুলি বিপজ্জনক নয় যদি না তারা দৃঢ়ভাবে ক্ষারীয় বা অম্লীয় হয় বা যৌগের অন্যান্য অংশগুলির কারণে তারা বিষাক্ত হয়। ক্যালসিয়াম যৌগগুলি আমাদের শরীরের প্রায় সর্বত্র থাকে। প্রকৃতপক্ষে, ক্যালসিয়াম একটি অপরিহার্য পুষ্টি যা মানুষের শরীরের শক্তিশালী হাড় এবং দাঁত তৈরি করতে সাহায্য করে।

ক্যালসিয়াম ধাতু একটি উচ্চ গলনাঙ্ক বিশিষ্ট ধাতু।

তথ্যসূত্রসম্পাদনা

বহিঃসংযোগসম্পাদনা